Panel Discussion about IRIIM at Kolkata

By Sonali Majumdar

গত ৩.২.২০২০, সোমবার আমেরিকা প্রবাসী – নিবাসী Journalist Sukumar Royএর আমন্ত্রণে আমরা কয়েকজন জড়ো হই এক সভায়– CN Tower, 3, Royd St.Kol.-16 য় K B Chowdhury র বিশাল ম্যানসনের তিনতলার বিশাল হলঘরে। উপস্থিত বিভিন্ন জগতের দিকপালেরা- – ছিলেন ফিল্ম জগতের রাজা সেন, ইরিমের অবৈতনিক সম্পাদক ডাঃ দেবাশিস বক্সী, সুজাতা এবং আর ও অনেক পরোপকারী ব্যক্তিত্ব।
সুকুমার দুর্গাপুরে একটি অবৈতনিক বৃদ্ধাবাস চালান” বাদশা” নামে– যার টানে বছরে দু’বার ও চলে আসেন সুকুমার।
সেদিনের সভা ছিল ” ইরিমের কথা” নিয়ে– ইরিম –i.e. Indian Research Institute for Integrated Medicine.
ইরিম সুস্বাস্থ্যের লক্ষ্যে এগিয়ে চলেছে ১৯৮১ সাল থেকে হাওড়ার মৌরিগ্রাম স্টেশনের কাছে।এবং ৫০ এ, স্কট লেনে ও, লেডি ডাফরিন হাসপাতালের পাশে। শুরু করেছিলেন বিভিন্ন মেডিক্যাল কলেজের তরুণ চিকিৎসক — উদ্দেশ্য পশ্চিমী ধাঁচের বিপুল ব্যয়সাপেক্ষ চিকিৎসার বদলে চিকিৎসা ব্যবস্থায় প্রকৃতিমুখীনতা।
ইরিমের ব্যবস্থাপনায়ঃ ১! সমন্বিত আকুপাংচার – যোগ- প্রাকৃতিক চিকিৎসার বহির্বিভাগ ও অন্তর্বিভাগ,
২! ফিজিওথেরাপি, হোমিওপ্যাথি, এলোপ্যাথি, কাউন্সেলিং,
৩! নেশামুক্তি ও পুনর্বাসন,
৪! উচ্চ মাধ্যমিক পাশ এবং চিকিৎসকদের জন্য শিক্ষাদান,
৫! প্রকৃতিমুখী ও সমন্বিত চিকিৎসার উপর গবেষণা, পড়াশোনা বা চর্চা,
৬! স্বাস্থ্যকর খাদ্যদ্রব্য প্রাপ্তি ও বনৌষধির চর্চা,
৭! স্বাস্থ্য সচেতনতা শিবির,
৮! জৈব খাদ্যদ্রব্যর প্রাপ্তিস্থান।
ইরিম- কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার স্বীকৃত – অনুমোদিত গবেষণা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। অলাভজনক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা ইরিম। এ’ পর্যন্ত সাড়ে তিন লক্ষের ও বেশী রোগীবন্ধুর চিকিৎসা হয়েছে, কয়েক লক্ষাধিক মানুষকে শিবিরের মাধ্যমে সচেতন করা হয়েছে এবং প্রায় ১৪০০ জন চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী শিক্ষালাভ করেছেন।
ইরিমের উত্তরোত্তর শ্রীবৃদ্ধি ঘটুক — এগিয়ে চলুক আলোর দিশা হয়ে এই লোভী, স্বার্থপর, হিংস্র সমাজের বুকে!
চরৈবেতি – চরৈবেতি – চরৈবেতি….

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *